ভারতের নয়াদিল্লির একটি ফাইভ স্টার হোটেলে ২৭ বছর বয়সী এক নার্সকে গণধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। মধ্য দিল্লির ওবেরি হোটেলে গত ১৫ আগস্ট রাতে এ ঘটনা ঘটে। খবর টাইমস অব ইন্ডিয়ার।

ওই ঘটনার পর নির্যাতিতা কোনো অভিযোগ দায়ের করেননি। তবে দ্বিতীয়বার অভিযুক্তরা তাকে ধর্ষণের চেষ্টা করলে গত সোমবার স্বামীকে তিনি এ কথা জানান।

এ ব্যাপারে থানায় অভিযোগের পর দুই অভিযুক্তকেই গ্রেফতার করেছে পুলিশ। নিরাজ (২৫) ও রাজন (২৩) নামের ওই দুজনকে তিহার জেলে পাঠানো হয়েছে।

এফআইআর (ফার্স্ট ইনফরমেশন রিপোর্ট) থেকে জানা গেছে, ১৫ আগস্ট রাতে হোটেল থেকে বের হতে কিছুটা দেরি হলে অভিযুক্ত দুইজন ওই নার্সকে একটি ছোট কক্ষে নিয়ে ধর্ষণ করে। এরপর গত রবিবার রাতে আবারও তাকে ধর্ষণের চেষ্টা করলে সে তার স্বামীকে জানায়। সোমবার সকালে তার স্বামী পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করে।

নির্যাতিতা এর আগে একটি বেসরকারি হাসপাতালে নার্স হিসেবে কর্মরত ছিলেন। গত দুই মাস ধরে তিনি ওই হোটেলে হার্টের রোগী এক বৃদ্ধার ব্যক্তিগত নার্স হিসেবে কাজ করছিলেন।

পুলিশ জানায়, অভিযুক্ত নিরাজ আট বছর ও রাজন গত ছয় মাস ধরে অসুস্থ বৃদ্ধার অধীনে চাকরি করছে।

অভিযুক্তদের ১৪ দিন পুলিশি হেফাজতে রাখার নির্দেশ দিয়েছেন ম্যাজিস্ট্রেট।

ওদিকে হোটেল কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, তারা ঘটনাটি তদন্তে পুলিশকে সর্বাত্মক সহযোগিতা করবে।